জাতিসংঘের মহাসচিব পদে লড়বেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত অরোরা

এবার জাতিসংঘের মহাসচিব পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার ঘোষণা দিয়েছেন ৩৪ বছর বয়সী ভারতীয় বংশোদ্ভূত যুবতী আকাঙ্ক্ষা অরোরা। এই অল্প বয়সেই তিনি জাতিসংঘের মহাসচিব পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। যদি তাতে তিনি সফল হন তাহলে বিশ্ববাসীর আশ্রয়স্থল জাতিসংঘের প্রথম কোনো নারী মহাসচিব হবেন তিনি। আগামী অক্টোবরে এই পদে নির্বাচন হবে। তাতে আগেভাগেই প্রতিদ্বন্দ্বিতার ঘোষণা দিয়েছেন ভারতীয় এই যুবতী।

অরোরা ২০১৬ সালে যোগ দেন জাতিসংঘে। এর দুই বছরের মধ্যে তার মনে হতে থাকে- যে উদ্দেশ্যে জাতিসংঘ সৃষ্টি করা হয়েছে, সেই লক্ষ্য অর্জনে ব্যর্থ হচ্ছে সংগঠনটি। ২০১৯ সালের জানুয়ারিতে তিনি সিদ্ধান্ত নেন যে, জাতিসংঘের নেতৃত্বে যাওয়া ছাড়া এটার পরিবর্তন সম্ভব নয়। তাই ৩৪ বছর বয়সে এসে তিনি সিদ্ধান্ত নিয়েছেন পরবর্তী মহাসচিব পদে প্রার্থী হবেন। যদি তাই হয় এবং তিনি যদি এ যাত্রায় সফল হন তাহলে একসঙ্গে দুটি রেকর্ড গড়বেন। একটি হলো সবচেয়ে কম বয়সে জাতিসংঘের মহাসচিব এবং অন্যটি হলো প্রথম কোনো নারী মহাসচিব।

অরোরা বলেন, জাতিসংঘ মানুষকে হতাশ করেছে। যাদের তার সেবা দেয়ার কথা ছিল তারা তা দেয়নি। জাতিসংঘের সবচেয়ে বড় শত্রু হলো সেবা দেয়ায় তার নিজস্ব অক্ষমতা। সিদ্ধান্ত গ্রহণ কোনো সমস্যা নয়। সমস্যা হলো তা বাস্তবায়ন, যেটা আমরা দেখতে পাচ্ছি না। এর ফলে জাতিসংঘের প্রতি মানুষের প্রত্যাশা, আস্থা হারিয়ে যাচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *